ইসলামের শত্রুরা আমাকে টার্গেট করেছে: জাকির নায়েক

  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৩:০৪ পিএম, ০২ ডিসেম্বর ২০১৮

বিতর্কিত ধর্মীয় বক্তা জাকির নায়েক দাবি করেছেন, তিনি তার দেশ ভারতের কোনও আইন ভঙ্গ করেননি; উল্টো ‘ইসলামের শত্রুদের’ টার্গেটে পরিণত হয়েছেন। শনিবার মালয়েশিয়ার পেরলিস রাজ্যের রাজধানী কাঙ্গারে বিরল এক জনবক্তৃতায় তিনি এমন মন্তব্য করেন। খবর মালয়েশিয়ার সংবাদ মাধ্যম মালয় মেইলের।

গত বছর ভারতীয় কর্তৃপক্ষ জানায়, ৫৩ বছর বয়সী নায়েক ‘জন বক্তৃতা ও লেকচারের মাধ্যমে ভারতে বিভিন্ন ধর্মীয় গ্রুপের মধ্যে শত্রুতা বৃদ্ধি এবং ঘৃণা ছড়াচ্ছেন।’ তার বিরুদ্ধে অর্থ পাচার ও ঘৃণামূলক বক্তব্য প্রচারের অভিযোগে মামলাও করেছে ভারত সরকার।

জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগের তদন্ত শুরু হওয়ার পর থেকে তিনি মালয়েশিয়ায় থাকছেন। দেশটিতে তার স্থায়ীভাবে থাকার অনুমতি রয়েছে।

তবে ‘মালয়েশিয়ার শান্তির জন্য তিনি একটি হুমকি’ এমন সমালোচনার কারণে নায়েক সেখানে খুব একটা সক্রিয় নন।

কানগারে দেয়া বক্তৃতায় নায়েক বলেন, ‘ইসলামের প্রচারের কারণে আমাকে টার্গেট করা হচ্ছে। যেহেতু আমি শান্তির বিস্তার করি, আমি মানবতার সমাধান দিচ্ছি, যারা চায় না যে শান্তি বজায় থাকুক, তারাই আমাকে অপছন্দ করে।’

জাকির নায়েক বলেন, ইসলামের শত্রুরা এই বিষয়টি ভালোভাবে নেয়নি। সেটা পশ্চিমা দেশগুলোই হোক বা আমার জন্মভূমি ভারতেই হোক।

গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, সমকামি এবং ইসলামী বিশ্বাস ত্যাগকারী ব্যক্তিদের মৃত্যুদণ্ডের পক্ষে প্রচার চালিয়ে বিতর্কিত হয়েছেন নায়েক।

আপনার মতামত লিখুন :